এবার পশ্চিমবঙ্গে ‌খালিস্তানি ‌‍বিতর্ক - Southeast Asia Journal

এবার পশ্চিমবঙ্গে ‌খালিস্তানি ‌‍বিতর্ক

এবার পশ্চিমবঙ্গে ‌খালিস্তানি ‌‍বিতর্ক
“এখান থেকে শেয়ার করতে পারেন”

Loading

নিউজ ডেস্ক

‘খালিস্তানি’ মন্তব্য ঘিরে তোলপাড় ভারতের পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতি। কর্তব্যরত পাগড়িধারী পুলিশ কর্মকর্তাকে খালিস্তানি বলে মন্তব্যের ঘটনায় কাঠগড়ায় বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী।

এডিজি দক্ষিণবঙ্গ সুপ্রতিম সরকারের দাবি, পুলিশ কর্মকর্তা জশপ্রীত সিংকে খালিস্তানি বলেছেন শুভেন্দু অধিকারী। প্ররোচনামূলক মন্তব্যের জন্য তার বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানালেন এডিজি। যদিও অভিযোগ অস্বীকার করেছেন বিরোধী দলনেতা। ‘ড্যামেজ কন্ট্রোল’ করতে তার দাবি, এ ধরনের কোনো মন্তব্য করার প্রয়োজন তাদের নেই। বরং শিখ সম্প্রদায়ের সবাইকে তিনি শ্রদ্ধা করেন।

জানা গেছে, পশ্চিমবঙ্গের সন্দেশখালি যাওয়ার পথে ধামাখালিতে আটকানো হয় শুভেন্দু অধিকারী, শংকর ঘোষ, অগ্নিমিত্রা পলসহ বিজেপি কর্মীদের। একইসঙ্গে সন্দেশখালির ১২ জায়গায় নতুন করে ১৪৪ ধারা জারি করা হয়। পরে অবশ্য কলকাতা হাইকোর্টের অনুমতিতে সন্দেশখালি ঢোকেন শুভেন্দু ও শংকর। ধামাখালিতে বিজেপি কর্মীদের আটকানোর সময় পুলিশের সঙ্গে কথাকাটাকাটি হয়। অভিযোগ উঠেছে সেই সময় পুলিশ সুপার জশপ্রীত সিংকে খালিস্তানি বলে মন্তব্য করেন বিজেপি কর্মীরা।

এ প্রসঙ্গে সুপ্রতিম সরকারের দাবি, আজ সকালে ধামাখালিতে ইনটালিজেন্স ব্রাঞ্চে স্পেশাল সুপারিটেনন্ডেড জশপ্রীত সিংয়ের দিকে সরাসরি আঙুলের উঁচিয়ে খালিস্তানি বলেছেন বিরোধী দলনেতা। বলেছেন, ‘ইনি খলিস্তানি’। একজন রাজনৈতিক নেতার মুখে এধরনের অসংবেদনশীল, প্ররোচনামূলক, অসম্মানজনক মন্তব্য শুনে আমরা স্তম্ভিত। এটা দণ্ডনীয় অপরাধ। বিরোধী দলনেতার বিরুদ্ধে প্রয়োজনীয় আইনি পদক্ষেপ নেওয়া হবে বলে জানালেন সুপ্রতিম সরকার।

যদিও অভিযোগ অস্বীকার করেছেন বিরোধী দলনেতা শুভেন্দু অধিকারী। তার দাবি, আমি বা আমাদের সঙ্গীরা কোনো ধর্মকে আক্রমণ করে কিছু বলেনি। আমরা গুরু নানকজিকে প্রণাম করি। শিখ ধর্মকে সম্মান করি।

  • আন্তর্জাতিক অন্যান্য খবর জানতে এখানে ক্লিক করুন।
  • ফেসবুকে আমাদের ফলো দিয়ে সর্বশেষ সংবাদের সাথে থাকুন